সমালোচনা করায় ধনকুবেরের ১৮ বছর কারাদণ্ড দিল চীন

নাগরিক ডেস্ক:
চীনে একজন ধনকুবেরকে ১৮ বছরের জেল দিয়েছে দেশটির আদালত। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি জানিয়েছে, ‘বিবাদ এবং সংকট সৃষ্টিতে উস্কানি দেওয়ার’ অপরাধে দোষী সাব্যস্ত করে দেশের কৃষিখাতের সবচেয়ে বড় ব্যবসায়ী সান দাওউকে এই সাজা দেওয়া হয়েছে। ৬৫ বছর বয়সী সান এর আগে মানবাধিকার এবং স্পর্শকাতর রাজনৈতিক বিষয় নিয়ে সরকারের সমালোচনা করেছিলেন।

অবৈধভাবে কৃষিজমি দখল, সরকারি প্রতিষ্ঠানে হামলার উদ্দেশ্যে লোক জমায়েত করা এবং সরকারি কর্মচারীদের কাজে বাধা দেওয়ার দায়ে তাকে অভিযুক্ত করা হয়েছে। তাকে ৩১ লাখ ইউয়ান জরিমানাও করা হয়েছে।

২০১৯ সালে আফ্রিকান ‘সোয়াইন ফ্লু’ মহামারী আড়াল করা নিয়ে খোলাখুলিভাবে চীন সরকারের সমালোচনা করেন সান। সেসময় মহামারীতে তার খামার ক্ষতিগ্রস্ত হয় এবং বিপর্যস্ত হয় চীনের পোল্ট্রি শিল্প। অবৈধভাবে তহবিল সংগ্রহের অভিযোগে এর আগে ২০০৩ সালেও তাকে কারাদণ্ড দিয়েছিল আদালত। তবে দেশের জনগণ এবং আন্দোলন কর্মীদের দাবির মুখে ওই মামলা বাতিল করা হয়।

তবে সান তার বিরুদ্ধে আনা এসব অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে নিজেকে ‘সর্বান্তকরণে কমিউনিস্ট পার্টির একজন সদস্য’ হিসেবে দাবি করেন। অবশ্য তিনি অনলাইনে ‘বার্তা’ দেওয়াসহ বেশ কিছু ভুলের কথা স্বীকার করেছেন।

Sharing is caring!