ডলারের প্রভাবে সোনার বাজারে

খোলা বাজারে ডলারের দামের প্রভাবে সোনার দামও বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতি (বাজুস)। যদিও আন্তর্জাতিক বাজারে সোনার দামে নিম্নমুখী প্রবণতা রয়েছে। ডলারের দাম বেড়ে যাওয়ায় প্রতি ভরি সোনার দাম সর্বোচ্চ ১ হাজার ৭৫০ টাকা বাড়ছে।

নতুন এই দর বুধবার থেকে সারা দেশে কার্যকর হবে। মঙ্গরবার বিকেল পৌনে ছয়টার দিকে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে মূল্যবৃদ্ধির এ তথ্য জানায় বাজুস।

সোনার দাম বাড়ানোর বিষয়ে জুয়েলার্স সমিতি জানায়, যুদ্ধ ও বৈশ্বিক অর্থনৈতিক পরিস্থিতি এবং মুদ্রাবাজারে মার্কিন ডলার ও অন্যান্য মুদ্রার দাম অস্বাভাবিক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। তাতে স্থানীয় বুলিয়ন মার্কেটেও সোনার দাম বেড়েছে। সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনায় সোনার দাম সমন্বয়ের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

দাম বৃদ্ধির পর ভালো মানের অর্থাৎ ২২ ক্যারেটের এক ভরি সোনার অলংকার তৈরি করতে লাগবে ৭৮ হাজার ২৬৫ টাকা। এছাড়া ২১ ক্যারেট ৭৪ হাজার ৭০৮ টাকা, ১৮ ক্যারেট ৬৪ হাজার ৩৫ টাকা এবং সনাতন পদ্ধতির সোনার অলংকারের ভরি বিক্রি হবে ৫৩ হাজার ৩৬৩ টাকায়।

বিশ্ববাজারে সোনার দরপতন হওয়ায় গত ১১ মে দেশেও ভরিতে ১ হাজার ১৬৬ টাকা পর্যন্ত দাম কমানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছিল বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতি। তাতে ২২ ক্যারেটের এক ভরি সোনার দাম দাঁড়ায় ৭৬ হাজার ৫১৬ টাকা। যদিও এই দরে মাত্র ছয় দিন সোনার অলংকার কেনাবেচা হয়েছে।

Sharing is caring!