বোমা ফাটালেন মির্জা কাদের, ওবায়দুলের হাজার কোটি টাকা

এবার হাটে হাড়ি ভাঙলেন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের ভাই মির্জা কাদের। মির্জা কাদের জানালেন, তার ভাই ওবায়দুল কাদের হাজার কোটি টাকার মালিক বনে গেছেন। আর এসব টাকার সবটাই তার অবৈধ পথে আয় করা। তিনি সম্প্রতি আরও বলেছিলেন, তাদের দুই ভাইয়ের এক সময় পরনের কাপড়ও ছিল না। ঈদের সময় তারা কাপড় কিনবেন সেই টাকাও ছিল না। তাদের বাবা তাদেরকে কাপড় কিনে দিতে পারতেন না।

মির্জা কাদেরের এমন কথার পরই সমালোচনা ঝড় উঠেছে আওয়ামী লীগের মধ্যে। ওবায়দুল কাদেরের চাঁদাবাজির গোমর ফাঁস করে দিলেও এখন ভোটবিহীনভাবে সরকারে থাকা আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে প্রতিক্রিয়া আসেনি। হয়ত আগামীকাল থেকে এক যোগে সব দুর্নীতিবাজ নেতারা কাদের পক্ষে সাফাই গাওয়া শুরু করবেন বলে আশা করা যাচ্ছে।

শুক্রবার (১৬ এপ্রিল) বিকেল ৪টায় তার অনুসারী স্বপন মাহমুদের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট থেকে লাইভে এসে মির্জা কাদের এসব কথা বলেন।

সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, তোমার কারণে আমার একটা ভাই ফাঁসি দিয়ে মারা গেছে। আজকে তোমার স্ত্রী হাজার হাজার কোটি টাকার মালিক হয়েছে। তোমার শ্বশুর পক্ষের লোকজন হাজার হাজার কোটি টাকার মালিক হয়েছে। আমার কর্মীদের চাকরি দেবে বলেছিলে, আজকে একজন কর্মীরও চাকরি হয়নি।

বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদের মির্জা বলেছেন, ‘ওবায়দুল কাদের আজকে আমার বিরুদ্ধে পুলিশ লেলিয়ে দিয়েছেন, সন্ত্রাসী লেলিয়ে দিয়েছেন। তিনি তার দুর্নীতিবাজ স্ত্রীকে বাঁচানোর জন্য ব্যস্ত। তবে বাঁচাতে পারবেন না, কোনো সুযোগ নেই।

তিনি বলেন, আজ সংবাদপত্রগুলোর মুখ রুদ্ধ করে দিয়েছে। তাদের কথা বলতে দিচ্ছে না। তারা সত্য ঘটনা এখান থেকে উদঘাটন করেছে। সেটা ওবায়দুল কাদের প্রকাশ করতে দিচ্ছে না। তার কি স্বার্থ। সে কি আমাদের হত্যা করতে চায়। এটার পরিণতি অত্যন্ত ভয়াবহ হবে বলে দিচ্ছি। ’

এসময় তিনি ওবায়দুল কাদেরকে উদ্দেশ্য করে বলেন, ‘তোমার পুলিশবাহিনী এবং প্রশাসন সামলাও বলে দিচ্ছি। তুমি জেলে নেবে হত্যা করবে। তোমাকে আমরা ভয় করিনা। তোমার খাইও না পরিও না। ’

কোম্পানীগঞ্জে যে উন্নয়নগুলো হয়েছে সেটা নেত্রীর কারণে হয়েছে। সারা বাংলাদেশে হয়েছে। এখানে কোনো কাজ হয়নি। এখানে এখনো গ্যাস নেই।

Sharing is caring!