মরিয়া হয়ে উঠেছে মোদি ও শাহ

ভারতের কোচবিহারের শীতলকুচি ও মাথাভাঙার ঘটনায় দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে দায়ী করে তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন তৃণমূলের জাতীয় মুখপাত্র ডেরেক ও’ব্রায়েন।

ভারতের শীতলকুচিতে কেন্দ্রীয় বাহিনীর গুলিতে মৃত্যু হয়েছে ৪ জন মুসলমানের। নিহতদের নাম হামিদুল হক, সামিয়ুল হক, মনিরুল হক, নুর আলম। সকালে রাজনৈতিক সংঘর্ষে মৃত্যু হয়েছে আরও একজনের।

তৃণমূলের দাবি, বিনা প্ররোচনায় গুলি চালিয়েছে দেশটির কেন্দ্রীয় বাহিনী। তিনি বলেন, মোদী ও শাহ মরিয়া হয়ে উঠেছেন। এটাই সোনার বাংলা! বাংলা কখনও আপনাদের ক্ষমা করবে না।

ডেরেক ও’ব্রায়েন টুইটে লিখেছেন, স্বচ্ছ ও সুষ্ঠুভাবে আপনারা হারাতে পারছেন না। গুলি করে খুন করতে হচ্ছে। মো-শা আপনারা হত্যাকারী। আপনাদের নির্দেশেই ডিজি, ডিজি, এডিজি এবং ওই জেলার পুলিস সুপার বদলি করেছে নির্বাচন কমিশন। ৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। আপনাদের দুজনের হাতে রক্ত লেগে। এতে অবশ্যই আপনারা অভ্যস্ত।

এদিকে হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় উল্টো তৃণমূল নেত্রীকে দায়ী করে বিজেপি প্রার্থী নিশীথ প্রামাণিক বলেন,’মমতার উস্কানিমূলক মন্তব্যের জেরে মাথাভাঙা, শীতলকুচিতে বিশেষ শ্রেণির লোকেরা বাহিনীর ওপর চড়াও হয়। কেন্দ্রীয় বাহিনী আত্মরক্ষার্থে গুলি চালিয়েছে।

Sharing is caring!