বাংলাদেশে বন্ধ করে দেয়া হলো নাগরিক টিভির ওয়েব পোর্টাল

কানাডা এবং নর্থ আমেরিকার পুরোনো এবং জনপ্রিয় সম্প্রচারমাধ্যম হিসেবে বেশ সুনামের সাথে দীর্ঘদিন ধরে কাজ করে আসছে নাগরিক টিভি। কানাডাতে নাগরিক টিভির মূল আবাসস্থল হলেও নাগরিকের দর্শক শুধু প্রবাসী জনগোষ্ঠীই নয়, বরং বাংলাদেশ এবং বিশ্বের বিভিন্ন দেশের বাংলা ভাষাভাষী মানুষের কাছেও অত্যন্ত জনপ্রিয় নাগরিক টিভি। যার প্রমান আমরা প্রতিনিয়ত পাই আমাদের ওয়েবসাইট এবং ফেইসবুক পেজ এ বিপুল পরিমান মানুষের উপস্থিতি এবং প্রাণবন্ত কমেন্টস এর মাধ্যমে।

রাজনৈতিক দৃষ্টিকোণ থেকে নাগরিকের প্লাটফর্ম সর্বদাই গণতন্ত্র, মানবাধিকার এবং মানুষের মৌলিক অধিকার রক্ষাকারীদের পক্ষে। এবং আমাদের অবস্থান সব সময়ই স্বাধীনতা বিরোধী ,স্বৈরাচার বা ফ্যাসিবাদীদের বিরুদ্ধে। কিছুদিন আগেও জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে কটূক্তির জন্য আমাদের অনুষ্ঠান থেকে আমরা একজন অতিথিকে বাদ দিয়েছিলাম। তাছাড়া বাংলাদেশের সাইবার ক্রাইম ইউনিট থেকেও একবার আমাদের পোর্টালের একটি সংবাদ নিয়ে আপত্তি জানানোর পর আমরা তাৎক্ষণিক সেই অংশটুকো সংশোধন করেছিলাম। অর্থাৎ আমাদের সংবাদ নিয়ে আমরা কখনোই এমন কিছু করিনি যেটা দেশের স্বাধীনতা , সার্বভৌমত্ব গণতন্ত্রের জন্য হুমকি হতে পারে। দেশের প্রচলিত আইন পরিপন্থী কোনো কিছুই আমাদের পোর্টালে আমরা রাখি নি।

সম্পাদকীয় নীতিতে সর্বদা নিরপেক্ষতা বজায় রাখার জন্য বর্তমান সরকারের বহু মন্ত্রী এবং এবং এমপি আমাদের অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়েছেন এবং টক্ শোগুলো প্রাণবন্ত করেছেন। অতি সম্প্রতি আমরা ডাকসুর সদ্য সাবেক ভিপি নুরুলহক নুরের পক্ষ নিয়ে বেশ কিছু নিবন্ধ আমাদের ওয়েব পোর্টালে প্রকাশ করেছি। আমাদের ধারণা সরকারের পক্ষে সেগুলো হয়তো বিব্রতকর ছিল। কিন্তু আমরা আমাদের নিবন্ধগুলোর ব্যাপারে শতভাগ নিশ্চয়তা দিয়ে বলতে পারি যে আমাদের নিবন্ধগুলো কোনো উদ্দেশ্যপ্রনোদিত কিছু নয়। বরং আমরা তারুণ্যের শক্তিকে সর্বাত্মক সহযোগিতার মাধ্যমে চলমান ফ্যাসিবাদী সরকারের টনক নড়াতে চাই যাতে তারা আচরণগতভাবে গণতান্ত্রিক হয়।

কিন্তু আমাদের ধারণা ভুল প্রমান করে এই সরকার প্রমান করলো এরা আচরণগতভাবে কতটা ফ্যাসিবাদী মানুষিকতা ধারণ করে ! শুধুমাত্র সত্যের পক্ষে এবং ফ্যাসিবাদের বিপক্ষে অবস্থান নেবার কারণে সমগ্র বাংলাদেশে আমাদের নাগরিক টিভির ওয়েব পোর্টাল www.nagoriktv.com বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। আমরা সরকারের এই সিদ্ধান্তের তীব্র নিন্দা জানাই এবং আমরা আশা করবো অবিলম্বে তারা আমাদের ওয়েবসাইট থেকে এই রিজিওনাল ব্লকটি প্রত্যাহার করবে।

পাশাপাশি আমরা প্রত্যাশা করবো সরকারের ভিতরের এই অতি উৎসাহী মহল যারা সুযোগ পেলেই মিডিয়ার কণ্ঠরোধ করার চেষ্টা করে থাকে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হোক। এভাবে সবগুলো মিডিয়াকে দালাল মিডিয়া বানানোর প্রচেষ্টা সরকারের জন্যই বুমেরাং হবে। আমরা নাগরিক টিভির ওয়েব পোর্টাল অবিলম্বে বাংলাদেশে চালু করে দেবার জোর দাবি জানাচ্ছি।

Sharing is caring!