দলগুলোর পছন্দের নাম চেয়েছে সার্চ কমিটি

সার্চ কমিটির প্রথম বৈঠক ছিল আজ রবিবার। বৈঠকের পর সব রাজনৈতিক দলগুলোর সামনে নির্বাচন কমিশনার ও অন্যান্য কমিশনার পদের জন্য দশ জন করে পছন্দের ব্যক্তির নাম দেয়ার সুযোগ দেয়া হয়েছে। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের যুগ্মসচিব শফিউল আজিমের সই করা এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এছাড়াও ব্যক্তিগত পর্যায়ে আগ্রহী ব্যক্তিরা তাদের নিজ নিজ নাম প্রস্তাব করতে পারবেন বলেও বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতেতে বলা হয়, প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও অন্যান্য নির্বাচন কমিশনারদের নিয়োগ দিতে নির্বাচন কমিশন কর্তৃক নিবন্ধিত রাজনৈতিক দলগুলো আগামী ১০ ফেব্রুয়ারি বিকেল ৫টার মধ্যে সর্বোচ্চ ১০ জনের নাম প্রস্তাব করতে পারবে।

পূর্ণাঙ্গ জীবনবৃত্তান্তসহ প্রস্তাবিত নাম সরাসরি মন্ত্রিপরিষদ বিভাগে বা ইমেইলের মাধ্যমে পাঠানোর অনুরোধ করা হয়েছে।

সুপ্রিম কোর্টের জাজেজ লাউঞ্জে দেশে প্রথমবারের মতো নির্বাচন কমিশন আইনের আওতায় সার্চ কমিটি গঠনের পরদিনই রবিবার বিকাল সাড়ে ৪টায় সংশ্লিষ্টদের নিয়ে প্রথম বৈঠকে বসলেন আপিল বিভাগের বিচারক বিচারপতি ওবায়দুল হাসান।

কমিটির সদস্য মহা হিসাব নিয়ন্ত্রক ও নিরীক্ষক (সিএজি) মুসলিম চৌধুরী, সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি) চেয়ারম্যান সোহরাব হোসাইন, সাবেক নির্বাচন কমিশনার মুহাম্মদ ছহুল হোসাইন, কথাসাহিত্যিক অধ্যাপক আনোয়ারা সৈয়দ হক বিকাল পৌনে ৪টা থেকে সোয়া ৪টার মধ্যে জাজেজ লাউঞ্জে পৌঁছান।

হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতি এস এম কুদ্দুস জামান আগে থেকেই সেখানে ছিলেন। কমিটিকে সাচিবিক সহায়তা দিয়েছেন মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলামও বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।

যদিও অন্যতম প্রধান বিরোধীদল বিএনপি আগে থেকেই এই সার্চ কমিটি নিয়ে নাখোশ রয়েছেন। তারা দাবি করেছেন, এই সার্চ কমিটি আওয়ামী লীগের আশির্বাদপুষ্ট।

Sharing is caring!